বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী রবিউল আলম রবির উপর হামলা

বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী রবিউল আলম
রবির উপর হামলা,হাসপাতালে ভর্তি

Robi
রাঙ্গামাটি পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী রবিউল আলম রবির উপর হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। গেলো সোমবার প্রচারণার শেষ সময়ে রাতে আসামবস্তী এলাকায় গণসংযোগ শেষে ফেরার পথে নারিকেল বাগানের সামনে তার গাড়ি বহরের উপর ইট-পাটকেল ও লাঠি-সোটা দিয়ে হামলা চালায় দুর্বৃত্তরা।

মধ্যরাতে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। নির্বাচনে তার জনপ্রিয়তার কারণে হিংসায় উন্মত্ত হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বী মেয়র প্রার্থীদের লোকজন তার উপর হামলা চালিয়েছে বলে তিনি অভিযোগ করেন। নির্বাচনে বিএনপির বিদ্রোহী হিসাবে স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়ার কারণে তার এবং তার সমর্থকদরে উপর প্রতিনিয়ত হুমকী দেয়া হচ্ছিল। তিনি সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে রাঙ্গামাটির প্রতিটি ভোট কেন্দ্রে সেনা মোতায়েনের দাবী জানান। এ ব্যাপারে কোতয়ালী থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী রবিউল আলম রবি বলেন, গত ২৮ ডিসেম্বর রাতে নির্বাচনী প্রচারণা শেষে ফেরার পথে বিএনপির প্রার্থী সাইফুল ইসলাম চৌধুরীর ভূট্টোর স’ মিলের অল্প দূরে আসলে বেশ কয়েকজন যুবক আমার গাড়ী বহর লক্ষ্য করে ইট পাটকেল নিক্ষেপ করে। এ সময় তাদের ছোঁড়া ইট আমার পায়ে ও বুকে লাগে। রাতেই আমি রাঙ্গামাটি সদর হাসপাতালে গেলে কতর্ব্যরত ডাক্তার আমাকে হাসপাতালে এডমিট করিয়ে দেন।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, রাঙ্গামাটি জেলা বিএনপির প্রার্থী আমাকে দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন ধরনের হুমকী ধামকী দিয়ে আসছিল। তিনি বলেন, আমার উপর কে হামলা চালিয়েছে তা আমি নির্দিষ্ট করে বলতে পারবো না। আমার জনপ্রিয়তা দেখে যে কোন মেয়র প্রার্থী আমার উপর হামলা চালিয়েছে।

এদিকে রাঙ্গামাটি ঘটনার খবর পেয়ে সাবেক পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদার এবং পরে রাঙ্গামাটি জেলা আওয়ামী লীগের প্রার্থী আকবর হোসেন চৌধুরী আহত প্রতিদ্বন্দ্বী মেয়র প্রার্থীকে দেখতে যান। এ সময় আকবর হোসেন চৌধুরী রবিউল আলম রবির উপর হামলার তীব্র নিন্দা জানান এবং হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানান।

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment