সাজেকে পর্যটকবাহী মাইক্রোবাস চাপায় ১ শিশু নিহত, আহত-১১

সাজেক রিপোর্ট –

Sajek

রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার সাজেকের শিজকছড়া পানির পয়েন্ট নামক স্থানে বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বিকাল ৪টার সময় পর্যটকবাহী মাইক্রোবাসের ধাক্কায় ছায়া রাণী চাকমা (৮) নামের এক শিশু নিহত হয়। নিহতের ছোট বোন ও পর্যটকবাহী মাইক্রোবাসে থাকা ১১জনকে গুরুতর অবস্থায় খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

এদিকে মাচালং বাজারের পাহাড়িরা সিজক ছড়ায় শিশু নিহতের খবর পেয়ে মাচালং বাজারে পর্যটকদের গাড়ি চলাচল বন্ধ করে দেয় এবং মাচালং বাজারে আহতদের উদ্ধার করে আনা পিকআপটির গতিরোধ করে। গাড়িতে থাকা আহত পাহাড়ি শিশুটিকে বের করে আর একটি জীপ গাড়ীতে তোলা হয়। এ সময় পিকআপ গাড়ির চাকার পাম ছেড়ে দেয়ার ঘটনার সময় সাজেকের সাংবাদিক জুয়েল ঘটনাস্থলের ছবি তোলার চেষ্টা করলে পাহাড়ি নারী পুরুষেরা সাংবাদিক জুয়েলের কাছ থেকে মোবাইল কেরে নেয় এবং তার উপর চড়াও হয়।

এ ঘটনার খবর পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে বাঘাইহাট জোনের উপ অধিনায়ক এইচ.এম সেলিমুজ্জামান ও নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা এসে আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠনোর ব্যবস্থা করেন।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, সাজেক ভ্রমনকারী পর্যটকের গাড়ী দেখে দোকান থেকে রাস্তায় দৌড়ে এসে দুই পাহাড়ি শিশু হাত নেড়ে টাটা দেয় এবং চকলেট নেওয়ার জন্য গাড়ীর দিকে ছুটে আসলে মাইক্রোবাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে তাদের চাপা দেয়। এসময় ঘটনাস্থলেই একজনের মৃত্যু হয় এবং মাইক্রোবাসটি রাস্তা থেকে প্রায় ৪০ ফুট পাহাড়ের নিচে পরে যায়।

এ ঘটনার খবর পেয়ে বাঘাইছড়ি উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুফিদুল আলম দ্রুত ঘটনাস্থল পরিদর্শনে আসেন, তিনি নিহত ছায়া রাণীর পিতা দয়াম্বর চাকমা ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধির সাথে কথা বলেন এবং নিহত শিশুর সৎকার করার খরচ উপজেলা প্রশাসন থেকে দেওয়ার আশ্বাস দেন এবং ক্ষতিপূরণের ব্যাপারে আগামী রবিবার মালিক পক্ষ ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিসহ বসে এই সমস্যা সমাধান করা হবে বলে জানান।

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment