বৌদ্ধভিক্ষু হত্যার প্রতিবাদে খাগড়াছড়িতে বৈশাখী পূর্ণিমা বর্জন

খাগড়াছড়ি রিপোর্ট –

Monk

বৌদ্ধ ভিক্ষু ধাম্মা ওয়াসা হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে খাগড়াছড়িতে শুভ বৈশাখী পূর্ণিমার র‌্যালিসহ সার্বজনীন উৎসব বর্জনের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।

খাগড়াছড়ি প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত মানব বন্ধনে পার্বত্য বৌদ্ধ ভিক্ষু সংঘের কেন্দ্রীয় সভাপতি অগ্রজ্যোতি মহাথের মঙ্গলবার সকালে এ ঘোষণা দেন। একই সাথে তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পদত্যাগও দাবি করেন।
পার্বত্য বৌদ্ধ ভিক্ষু ও বৌদ্ধ সম্প্রদায় আয়োজিত মানব বন্ধনে আদর্শ বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ ও প্রিয় নন্দ মহাথের, পানছড়ি ধর্মরাজিক বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ প্রজ্ঞা বংশ ছাড়াও খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা চেয়ারম্যান চঞ্চুমনি চাকমা, খাগড়াছড়ি জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি কংচাইরী মারমা, খাগড়াছড়ি প্রেস ক্লাবের সভাপতি জীতেন বড়ুয়া, পেড়াছড়া ইউপি চেয়ারম্যান তপন ত্রিপুরা ও ভারত প্রত্যাগত শরণার্থী কল্যাণ সমিতির সভাপতি সন্তোষিত চাকমা বকুলসহ বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, জন প্রতিনিধিরা সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন।

বক্তারা বলেন, ‘সারা বাংলাদেশে নরহত্যা হচ্ছে। খ্রীস্টান ফাদার, হিন্দু পুরোহিত, নিরীহ সাংবাদিকদের হত্যা করছে। এখন বৌদ্ধ জ্ঞানী ভিক্ষুকে হত্যা করা হলো।

তাদের দাবীসমূহ হচ্ছে, পার্বত্য চট্টগ্রামের আদিবাসী জুম্ম বৌদ্ধ, খ্রীস্টান ও হিন্দু সম্প্রদায়ের জীবন ও সম্পদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা, পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তি অনুযায়ী উপজাতি অধ্যুষিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করা, তিন পার্বত্য জেলায় বেদখলকৃত বৌদ্ধ মন্দিরের ও অনাথ আশ্রমের জমি উদ্ধার করা ও বান্দরবান জেলা থেকে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের সরকারিভাবে তালিকা করে অবিলম্বে বহিষ্কার করা।

এছাড়া বৌদ্ধ ভিক্ষু ধাম্মা ওয়াসা হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক বিচারসহ পাঁচ দফা দাবিতে জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ ওয়াজিদুজ্জামানের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি দেওয়া হয়।

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment