বন্দী নেতা-কর্মীদের মুক্তি এবং ধরপাকড় বন্ধের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল

১৭ ডিসেম্বর ২০১৬
প্রেস বিজ্ঞপ্তি –

ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমা ও পিসিপি নেতা বিপুল চাকমাসহ জেলবন্দী নেতা-কর্মীদের মুক্তি এবং ধরপাকড় বন্ধের দাবিতে খাগড়াছড়ি জেলা সদরে বিক্ষোভ মিছিল করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, হিল উইমেন্স ফেডারেশন, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম খাগড়াছড়ি জেলা শাখা। এছাড়া জেলার বিভিন্ন উপজেলায়ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ শনিবার (১৭ ডিসেম্বর) সকাল ১০টায় খাগড়াছড়ি শহরের বাস টার্মিনাল থেকে শুরু করে ইয়ং স্টার ক্লাবের সামনে গিয়ে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্য দিয়ে বিক্ষোভ মিছিলটি শেষ হয়। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অমল ত্রিপুরা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম খাগড়াছড়ি জেলা শাখার দপ্তর সম্পাদক সুমন্ত ত্রিপুরা ও হিল উইমেন্স ফেডারেশন খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সহ-সভাপতি এন্টি চাকমা।

বক্তারা বলেন, একজন নাগরিকের মৌলিক যে গণতান্ত্রিক অধিকার সেই অধিকার পার্বত্য চট্টগ্রামের নাগরিকদের কাছ থেকে কেড়ে নেওয়া হয়েছে। অন্যায়ভাবে ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমাকে আটক, অসুস্থ মায়ের সামনে থেকে ছাত্র নেতা বিপুল চাকমাকে আটক করে পার্বত্য চট্টগ্রামে শাসকগোষ্ঠী তার ফ্যাসিস্ট চেহারা উন্মোচন করেছে।

বক্তারা আরো বলেন, রাজনৈতিক দমন-পীড়নের জন্য পার্বত্য চট্টগ্রামে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে ১১ নির্দেশনা জারি করে সেনা-শাসনকে বৈধতা দেওয়া হয়েছে। সরকার একদিকে ভূমি সমস্যা সমাধানের জন্য ভূমি কমিশন আইন পাস করেছে, অন্য দিকে নান্যাচর উপজেলায় বুড়িঘাটে পাহাড়িদের জমি জোরপূর্বক বেদখল করার চেষ্টা চালাচ্ছে। সেনাবাহিনীর সহায়তায় সেটলার বাঙালিরা পাহাড়িদের ঘর-বাড়িতে হামলা চালিয়ে লুটপাট করছে, বাগান-বাগিচা কেটে দিয়ে নষ্ট করে দিয়েছে।

পার্বত্য চট্টগ্রামে জারিকৃত ১১ নির্দেশনা বাতিল, ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমা ও পিসিপি নেতা বিপুল চাকমাসহ কারাবন্দী সকল নেতা-কর্মীদের নিঃশর্ত মুক্তি  ও রাঙ্গামাটি নান্যাচর উপজেলার বুড়ি ঘাটে পাহাড়ি গ্রামে হামলাকারীদের শাস্তি ও ভূমি বেদখল বন্ধের দাবি জানান বক্তারা।

এছাড়া আরো যে সব উপজেলায় বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়:

মহালছড়ি: একই দাবিতে মহালছড়ি উপজেলায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, হিল উইমেন্স ফেডারেশন ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মহালছড়ি উপজেলা শাখা। আজ সকাল সাড়ে ৮টায় মহালছড়ি উপজেলা ধুমনিঘাট চৌমুহনীতে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে পিসিপি’র মহালছড়ি উপজেলা শাখার ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রিপন চাকমার সঞ্চালনায় উপজেলা ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সোনায়ন চাকমা’র সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, পিসিপি খাড়াছড়ি জেলা শাখার শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক সুমন্ত চাকমা ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মহালছড়ি উপজেলা সহ-সভাপতি স্বপন বিকাশ চাকমা।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে ন্যায়সঙ্গত আন্দোলনকে অন্যায় ধরপাকড়-নির্যাতন করে দমন করা যাবে না। সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামে অগণতান্ত্রিক ১১ নির্দেশনা জারি করে সাধারণ পাহাড়ি ও রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীদের উপর নির্যাতন চালিয়ে যাচ্ছে। নান্যাচরে সেনাবাহিনীর প্রত্যক্ষ মদদে সেটলার বাঙালিদের দিয়ে পাহাড়িদের জমি বেদখল করার চেষ্টা করা হচ্ছে। নান্যাচরে পাহাড়িদের ঘর-বাড়িতে হামলা ও ভূমি বেদখলের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান বক্তারা।

সমাবেশ শেষে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। বিক্ষোভ মিছিলটি ধুমনিঘাট চৌমুহনী হতে শুরু করে ২৪ মাইল চৌমুহনী ঘুরে ধুমনিঘাটে এসে শেষ হয়।

পানছড়ি: একই দাবিতে আজ সকাল ১০টায় পানছড়িতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, গণতান্ত্রিকযুব ফোরাম ও হিল উইমেন্স ফেডারেশন পানছড়ি উপজেলা শাখা। মিছিলটি সরকারি ডিগ্র্রি কলেজের মাঠ থেকে শুরু করে কলেজ গেইট ঘুরে এসে কলেজ মাঠে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম পানছড়ি উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক মিন্টু চাকমার সঞ্চালনায়, সভাপতি রুপায়ন চাকমার সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ (পিসিপি) পানছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি হিমেল চাকমা, কলেজ শাখার সভাপতি এডিশন চাকমা।

বক্তারা ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমা ও বিপুল চাকমাকে অন্যায়ভাবে আটকের প্রতিবাদ ও নিন্দা জানান। তারা অবিলম্বে ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমা ও বিপুল চাকমাসহ কারাবন্দী সকল নেতা-কর্মীদের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানান।

মানিকছড়ি: একই দাবিতে আজ সকাল ১০টায় মানিকছড়িতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মানিকছড়ি উপজেলা শাখা। মিছিলটি মানিকছড়ি সদর কলেজিয়েট স্কুল গেইট থেকে শুরু হয়ে ধর্মঘরে গিয়ে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্যে দিয়ে শেষ হয়। এতে বক্তব্য রাখেন, পিসিপি’র মানিকছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি উথোইপ্রু মারমা, মানিকছড়ি গিরী মৈত্রী ডিগ্রী কলেজ শাখার সহ-সভাপতি সুইথোই মারমা ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মানিকছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি রাপ্রু মারমা প্রমূখ।

দীঘিনালা: একই দাবিতে আজ শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, হিল উইমেন্স ফেডারেশন ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম দীঘিনালা উপজেলা শাখা। মিছিলটি দীঘিনালা উপজেলা সদর থানা বাজার থেকে শুরু হয়ে সিনেমা হল দোকানে এসে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হয়। এতে বক্তব্য রাখেন, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম দীঘিনালা উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক সজীব চাকমা ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ দীঘিনালা উপজেলা শাখার সভাপতি নিকেল চাকমা প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, গত ১৩ নভেম্বর খাগড়াছড়ি সদর পেরাছড়া এলাকায় থেকে বিনা কারণে ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমাসহ ৬ জন নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারের পর তাদের উপর অমানুষিক নির্যাতন চালানো হয়। আটক নেতা-কর্মীদেরকে অস্ত্র গুজিয়ে দিয়ে মিথ্যা মামলা সাজানো হয়।

বক্তারা আরো বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে জারিকৃত ১১ দফা নির্দেশনা জারি করার পর সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামে ন্যায়সঙ্গত আন্দোলনকে দমন করার জন্য বিভিন্নভাবে ষড়ষন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে। সরকারের অগণতান্ত্রিক আচরণ জনগণ কোন ভাবে মেনে নিতে পারছে না।

বক্তারা, অবিলম্বে ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমাসহ আটককৃত নেতা-কর্মীদের নিঃশর্ত মুক্তি দাবি জানান এবং পার্বত্য চট্টগ্রামে পূর্ণ গণতান্ত্রিক পরিবেশ ফিরিয়ে দেয়ার আহ্বান জানান।

মাটিরাঙ্গা: একই দাবিতে জেলা গুইমারা উপজেলায় বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ সকাল সাড়ে ১০টায় গুইমারা সদর এলাকায় বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ (পিসিপি) মাটিরাংগা ও গুইমারা উপজেলা শাখার উদ্যোগে এই বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে পিসিপি’র মাটিরাংগা উপজেলা শাখার সভাপতি দিপংকর ত্রিপুুরার সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক কমানিক ত্রিপুরার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন সহ-সভাপতি নেপাল ত্রিপুুরা ও পিসিপি গুইমারা উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক সন্তোষ চাকমা।

বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় কর্তৃক “১১ নির্দেশনা” জারি করার পর থেকে পার্বত্য চট্টগ্রামের গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক দল ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) ও তার সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী ও সাধারণ পাহাড়ি জনগণের উপর রাজনৈতিক নিপীড়ন বৃদ্ধি পেয়েছে। গত কয়েক মাসে অসংখ্য নেতা-কর্মী ও নিরীহ জনগণকে গ্রেফতার করে তাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও হয়রানিমূলক মামলা দিয়ে জেলে অন্তরীণ রাখা হয়েছে। শুধু তাই নয়, বিনা ওয়ারেন্টে আটকের পর তাদের উপর অমানুষিক শারীরিক নির্যাতন চালানো হয়েছে।

বক্তারা আরো বলেন, গণতন্ত্র ও সেনা-শাসন পাশাপাশি চলতে পারে না। পার্বত্য চুক্তির পর পার্বত্য চট্টগ্রামে সশস্ত্র সংগ্রামের অবসান হলেও আমাদের এই অঞ্চলে এখনো বিপুল সামরিক ও আধাসামরিক বাহিনীর উপস্থিতি রয়েছে। অপারেশন উত্তরণের নামে অঘোষিত সেনাশাসন বলবৎ রয়েছে। পার্বত্য চট্টগ্রাম সারা দেশের অন্য কোথাও এ ধরনের পরিস্থিতি বিরাজমান নেই।

বক্তারা, অবিলম্বে ইউপিডিএফ নেতা উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমা ও পিসিপি নেতা বিপুল চাকমাসহ কারাবন্দী ইউপিডিএফ ও তার সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী ও সমর্থকদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে নিঃশর্ত মুক্তি ও পার্বত্য চট্টগ্রামের চলমান ধরপাকড়, নির্যাতন, হয়রানি বন্ধ এবং পার্বত্য চট্টগ্রামসহ সারাদেশের গণতান্ত্রিক অধিকার নিশ্চিতের দাবি জানান।

রামগড়: এদিকে বেলা ২টায় রামগড় উপজেলায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, হিল উইমেন্স ফেডারেশন ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম রামগড় উপজেলা শাখা। মিছিলটি যৌথ খামার যাত্রী ছাউনি থেকে শুরু হয়ে যৌথ খামার বাজারে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্যে দিয়ে শেষ হয়। এতে রামগড় কলেজ শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক সুরেশ ত্রিপুরার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন কলেজ শাখার সভাপতি লিমন ত্রিপুরা, জেলা শাখার সদস্য নরেশ ত্রিপুরা, ইউপিডিএফের রামগড় উপজেলা সংগঠক হরি কমল ত্রিপুরা ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম রামগড় উপজেলা শাখার সদস্য মানিক ত্রিপুরা প্রমূখ।

লক্ষ্মীছড়ি: এছাড়াও লক্ষ্মীছড়ি উপজেলায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, হিল উইমেন্স ফেডারেশন ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম লক্ষ্মীছড়ি উপজেলা শাখা। মিছিলটি আজ সকাল ১১টায় কুশীনগর বনবিহার থেকে শুরু হয়ে লক্ষ্মীছড়ি সদর হাসপাতাল গেইটে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্যে দিয়ে শেষ  হয়। এতে বক্তব্য রাখেন পিসিপি কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হ্লাচিমং মারমা ও ইউপিডিএফ-এর লক্ষ্মীছড়ি উপজেলার সংগঠক আপ্রুসি মারমা প্রমূখ।

উল্লেখ্য, গত ২৩ অক্টোবর পানছড়িতে পিসিপি’র কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদকে বিপুল চাকমাকে পানছড়ি থানা পুলিশ কর্তৃক ও ১৩ নভেম্বর খাগড়াছড়ি সদর উপজেলার পেরাছড়া হাই স্কুলের পাশের একটি রাস্তা থেকে বিশিষ্ট রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ও ইউনাইটেড পিপল্স ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ)-এর কেন্দ্রীয় কমিটি’র সদস্য ও খাগড়াছড়ি ইউনিটের প্রধান সমন্বয়ক উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমাসহ তার পাঁচ সহকর্মীদের বিনা পরোয়ানায় অন্যায়ভাবে গ্রেপ্তার করে সেনাবাহিনী। গ্রেফতারের পর মিথ্যা ও সাজানো মামলা দিয়ে তাদেরকে কারাগারে পাঠানো হয়। বর্তমানে তারা খাগড়াছড়ি জেলা কারাগারে বন্দী রয়েছেন।

বার্তা প্রেরক –
সমর চাকমা
দপ্তর সম্পাদক
পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ
খাগড়াছড়ি জেলা শাখা।

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment