রাঙ্গামাটিতে বৌদ্ধদের ধর্মীয় গ্রন্থ ত্রিপিটক শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত

রাঙ্গামাটি রিপোর্ট –

পরিনির্বাণ প্রাপ্ত বৌদ্ধ ধর্মীয় আর্যপুরুষ শ্রীমৎ সাধনানন্দ মহাস্থবিরের (বনভান্তে) ৯৮তম জন্ম দিন উপলক্ষে মঙ্গলবার দুপুরে রাঙ্গামাটি শহরে ধর্মীয় গ্রন্থ ‘ত্রিপিটক’ শোভাযাত্রা বের করা হয়েছে।

বনভান্তের জন্ম দিবস উপলক্ষে ত্রিপিটক প্রদর্শনী ছাড়াও ৪ জানুযারি থেকে ৭ জানুয়ারি পর্ষন্ত ভিক্ষু সংঘের ত্রিপিটক পাঠ, উপসম্পদা অনুষ্ঠান এবং ৮ জানুয়ারি ভোরে বেলুন উত্তোলন ও কেক কাটার মধ্য দিয়ে দিনব্যাপী সাড়ম্বরে বনভান্তের জন্ম দিবস পালিত হবে।

উল্লেখ্য, মহাসাধক বনভান্তে ১৯২০ সালের ৮ জানুয়ারি রাঙ্গামাটি সদর উপজেলার মগবান ইউনিয়নের মুরোঘোনা গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। ২০১২ সালের ৩০ জানুয়ারি ৯৩ বছর বয়সে পরিনির্বাণ (দেহত্যাগ) করেন। বর্তমানে বনভান্তের মরদেহটি বিনয় সম্মতভাবে পেটিকাবদ্ধ (বিশেষ কফিন) অবস্থায় রাঙ্গামাটি রাজ বন বিহারে সংরক্ষণ করে রাখা হয়েছে।

আর্যপুরুষ শ্রীমৎ সাধনানন্দ মহাস্থবিরের আগামী জানুয়ারি ৯৮তম জন্ম দিবস উপলক্ষে রাজ বন বিহার পরিচালনা কমিটি রাঙ্গামাটিতে সপ্তাহব্যাপী অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করেছে। এরই অংশ হিসেবে মঙ্গলবার দুপুর ২টার দিকে শহরে ধর্মীয় গ্রন্থ ‘ত্রিপিটক’ -এর বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করে রাঙ্গামাটির বৌদ্ধ নারী-পুরুষ।

শোভাযাত্রাটি রাজবন বিহার থেকে শুরু হয়ে শহরের বনরূপা, তবলছড়ি, আসামবস্তি, রাঙ্গাপানি ও ভেদভেদী হয়ে আবারও রাজবন বিহার গিয়ে শেষ হয়। শোভাযাত্রায় কয়েকশ’ গাড়ির বহর নিয়ে ধর্মীয় গ্রন্থ ত্রিপিটক, গৌতম বুদ্ধের মূর্তি ও বনভান্তের প্রতিকৃতি প্রদর্শন করা হয়। এ শোভাযাত্রায় হাজার হাজার বৌদ্ধ নারী-পুরুষ অংশ নেন। রাঙ্গামাটি রাজবন বিহারের আবাসিক ভিক্ষু সংঘের প্রধান শ্রীমৎ প্রজ্ঞালংকার মহাস্থবির ও শ্রীমৎ জ্ঞানপ্রিয় মহাস্থবিরের নেতৃত্বে শোভাযাত্রাটি অনুষ্ঠিত হয়।

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment