রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের মাসিক সভা অনুষ্ঠিত

প্রেস রিপোর্ট –

১৯৯৭ সালের ২রা ডিসেম্বর পার্বত্য চুক্তির ফলে পার্বত্য জেলা পরিষদে গুরুত্বপূর্ণ বিভাগগুলো হস্তান্তরিত হয়েছে জনগণের কল্যাণ ও উন্নয়নের জন্য। তাই প্রতিষ্ঠান প্রধানদের সে লক্ষ্যে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা। তিনি বলেন, হস্তান্তরিত বিভাগগুলো পরিষদের সাথে সমন্বয় রেখে  কাজ করলে এ জেলার উন্নয়ন দ্রুত গতিতে এগিয়ে যাবে। তাই পরিষদের প্রতিটি সভায় প্রতিষ্ঠান প্রধানদের উপস্থিত থেকে জেলার উন্নয়ন, সমস্যা ও সম্ভাবনা সংক্রান্ত সকল তথ্য উপস্থাপন করার পরামর্শ দেন চেয়ারম্যান।

রবিবার (১৯ মার্চ) রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত পরিষদের মাসিক সমন্বয় সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের নির্বাহী কর্মকর্তা জনাব ছাদেক আহমদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্যবৃন্দ ও হস্তান্তরিত বিভাগের কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় স্বাস্থ্য বিভাগের সিভিল সার্জন ডা. শহীদ তালুকদার বলেন, গত ১৫ ডিসেম্বর ২০১৬ তারিখে এ জেলার বিভিন্ন উপজেলার স্বাস্থ্য কেন্দ্রের জন্য ৩৮ জন নার্স পাওয়া গেছে। নার্সদের বিভিন্ন উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে প্রেরণ করা হয়েছে। এছাড়া জেলার বিভিন্ন উপজেলায় স্বাস্থ্য বিভাগের জায়গা অবৈধভাবে দখলদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের লক্ষ্যে প্রশাসনের সাথে মিটিং হয়েছে। প্রশাসন উচ্ছেদের বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছে বলে তিনি সভাকে জানান।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বলেন, জেলার চেলাছড়া ও আটারকছড়া আবাসিক বিদ্যালয় পরিচালনার জন্য পিইডিপি-৪ হতে বরাদ্দ পাওয়া যাবে।

জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বলেন, জেলার শিক্ষার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধান, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও শিক্ষা অফিসের কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে আগামী ২৮মার্চ পরিষদের সভাকক্ষে সভা করা হবে। এছাড়া দাপ্তরিক কাজ সঠিকভাবে চলছে।

কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উপ-পরিচালক বলেন, শীত মৌসুম শেষ হয়ে যাওয়ায় বিভিন্ন উপজেলায় ভুট্টা ও চিনা বাদাম চাষের প্রদর্শনী দেওয়া হয়েছে।

জেলা মৎস্য কর্মকর্তা জানান, জেলে নিবন্ধনের কাজ এখনো চলছে। যেসব জেলে এখনো নিবন্ধন করেনি তাদের নিবন্ধনের জন্য তিনি অনুরোধ জানান।

জেলা সমাজ সেবা বিভাগের কর্মকর্তা বলেন, সমাজসেবা কর্তৃক তালিকাভুক্তদের মাঝে ক্ষুদ্রঋণ, বয়স্ক ভাতা, মুক্তিযোদ্ধা ভাতা, প্রতিবন্ধী শিক্ষা ভাতা  সঠিকভাবে প্রদান করা হচ্ছে।

জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের কর্মকর্তা বলেন, বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে আবাসিক ও অনাবাসিক বেকার যুবদের প্রশিক্ষণ প্রদান করার কার্যক্রম চলছে।

সভায় হস্তান্তরিত বিভাগের অন্যান্য কর্মকর্তাগণ তাদের বিভাগের স্ব স্ব কার্যক্রম উপস্থাপন করেন এবং বিভিন্ন সমস্যা ও সম্ভাবনার কথা তুলে ধরে মতামত ও পরামর্শ প্রদান করেন।

অরুনেন্দু ত্রিপুরা
১৯/০৩/২০১৭
জন সংযোগ কর্মকর্তা
রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ
ছবি এবং সংবাদ : লিটন শীল

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment