খাগড়াছড়িতে কিশোরী ধর্ষণ, চার ধর্ষক শনাক্ত

খাগড়াছড়ি রিপোর্ট –

খাগড়াছড়িতে এক কিশোরী (১৫) সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছে। এ ঘটনায় বেশ কয়েকজনকে আটক করেছে পুলিশ। এদের মধ্যে চারজনকে শনাক্ত করা হয়েছে। তারা হলেন- বাবু, আনোয়ার, মোজাম্মেল ও রুবেল। তাদের বয়স ১৮ থেকে ২০ বছরের মধ্যে। তাদের সঙ্গে আরও কয়েকজন যুবক জড়িত রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (২১ জুন) দুপুরে খাগড়াছড়ির বিনোদন কেন্দ্র জেলা পরিষদ পার্কে এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতিত কিশোরী খাগড়াছড়ির পাঁচ মাইলের কালাপানি ছড়া এলাকার বাসিন্দা। খাগড়াছড়ি আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ শ্রেণির ছাত্রী।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুরে ওই কিশোরীসহ চার বন্ধু খাগড়াছড়ির বিনোদন কেন্দ্র জেলা পরিষদ পার্কে ঘুরতে যায়। এসময় বন্ধু নয়নময় ত্রিপুরার সঙ্গে কিশোরী আলাদাভাবে গল্প করছিল। ঐ সময়ে একদল যুবক এসে নয়নকে আটকে রেখে কিশোরীর চোখ-মুখ বেঁধে সংঘবদ্ধভাবে ধর্ষণ করে।

এসময় স্থানীয় এক চায়ের দোকানদার এ ঘটনা দেখতে পেয়ে অন্যদের সহযোগিতায় বেশ কয়েকজনকে আটক করেন। পরে খবর দিলে পুলিশ এসে অভিযান চালিয়ে কমপক্ষে ১৫ জনকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদ পার্কের কর্মকর্তা ইমন ত্রিপুরা বলেন, ‘ধর্ষণের ঘটনাটি স্থানীয় চায়ের দোকানদার দেখতে পেয়ে অন্যদের নিয়ে প্রথমে মোজাম্মেলকে আটক করে। পরে আরও বেশ কয়েকজনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন।

খাগড়াছড়ির পুলিশ জানায়, আটকদের মধ্যে চার ধর্ষককে শনাক্ত করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে। এ ঘটনায় এখনো পর্যন্ত কোনো মামলা হয়নি।

খবরটি শেয়ার করুন

Post Comment